শেখ হাসিনার শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানের ছবিকে শিশু ধর্ষণ বিল স্বাক্ষরের ছবি বলে প্রচার

কপিরাইট এএফপি ২০১৭-২০২২। সর্বস্বত্ত্ব সংরক্ষিত।

বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একটি ছবি ফেসবুকে ছড়িয়ে দাবি করা হচ্ছে যে, এটি শিশু ধর্ষণের মামলায় মৃত্যুদণ্ডের বিধান রেখে বিলে স্বাক্ষরের ছবি। দাবিটি বিভ্রান্তির; ২০১৯ সালে নবনির্বাচত সংসদ সদস্যদের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীর এই ছবিটি সেসময় বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে আসে। ২০২০ সালের অক্টোবরে বাংলাদেশে ধর্ষণ মামলায় ফাঁসির বিধান রেখে সংশোধিত আইন পাশ হয়। এরপর দেশটিতে শিশু ধর্ষণের জন্য মৃত্যুদণ্ডের বিধান রেখে পৃথক কোন আইন পাশ হয়নি।

গত ৩ জানুয়ারি ফেসবুকে এখানে ছবিটি পোস্ট করা হয়।

পোস্টটির ক্যাপশনে লেখা রয়েছে, “শিশু ধর্ষণের অপরাধে সরাসরি মৃত্যুদন্ডের বিধানে সই করেছেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনা। আলহামদুলিল্লাহ।”

( Qadaruddin SHISHIR)

ছবিটি একইরকম দাবি সহকারে ফেসবুকে এখানে এখানে শেয়ার করা হয়।

তবে দাবিটি বিভ্রান্তিকর।

ভুলভাবে ব্যবহৃত ছবি

গুগল রিভার্স ইমেজ সার্চে দেখা যায় বিভ্রান্তিকর ফেসবুক পোস্টগুলোতে ব্যবহৃত ছবিটি ২০১৯ সাল থেকে সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত হয়। এর সাথে ধর্ষণ বিলে স্বাক্ষরের কোন সম্পর্ক নেই।

বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী, ২০১৯ সালের ৩ জানুয়ারি নবনির্বাচিত সংসদ সদস্যদের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে সংসদ সদস্য বইয়ে শেখ হাসিনার স্বাক্ষরের ছবি এটি।

বাংলাদেশি সংবাদমাধ্যম প্রথম আলো এবং দ্য ফাইন্যান্সিয়াল এক্সপ্রেসে ছবিটি বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থা (বাসস) এর সৌজন্যে প্রকাশিত হয়।

( Qadaruddin SHISHIR)

নতুন কোন আইন হয়নি

এএফপির এই প্রতিবেদন অনুযায়ী ২০২০ সালের অক্টোবরে দক্ষিণ এশীয় দেশটিতে ধর্ষণ মামলার বিচারে সর্বোচ্চ শাস্তি হিসেবে মৃত্যুদণ্ডের বিধান রেখে আইন অনুমোদিত হয়।

এই আইনেই সব ধরনের ধর্ষণের সর্বোচ্চ শাস্তি হিসেবে মৃত্যুদণ্ডের কথা উল্লেখ করা হয়েছে।

২০২২ সালের ১০ জানুয়ারি পর্যন্ত শুধুমাত্র শিশু ধর্ষণের জন্য মৃত্যুদণ্ডের বিধান রেখে পৃথক কোন ‘নতুন আইন‘ পাশ হয়নি।